পুঁজিবাজারে মাসিক বিনিয়োগ প্রকল্প ‘লঙ্কা-বাংলা নিশ্চিন্ত'
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » পুঁজিবাজার

পুঁজিবাজারে মাসিক বিনিয়োগ প্রকল্প ‘লঙ্কা-বাংলা নিশ্চিন্ত’

পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের কথা ভাবছেন? চিন্তা করছেন কিভাবে বিনিয়োগ করবেন? এই চিন্তার অবসান করতে মাসিক কিস্তি পদ্ধতিতে বিনিয়োগের সুযোগ দিচ্ছে মার্চেন্ট ব্যাংক লঙ্কা বাংলা ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড। পুঁজিবাজারে সহজ বিনিয়োগের জন্য প্রতিষ্ঠানটি নিয়ে এসেছে নতুন পণ্য ‘লঙ্কা-বাংলা নিশ্চিন্ত’।

৩ বছর মেয়াদী এ পণ্যে সর্বনিম্ন ৫ হাজার থেকে সর্বোচ্চ পরিমাণে বিনিয়োগ করা যাবে। তিন বছর পর বিনিয়োগকারী মুনাফাসহ টাকা ফেরত পাবেন। চাইলে তারা সময় বাড়াতেও পারবেন।

এখানে বিনিয়োগ আপনার; চিন্তা লঙ্কা-বাংলা ইনভেস্টমেন্টের- এমন কথাই বলছেন প্রতিষ্ঠানটির এ পণ্যের দায়িত্বে থাকা আদনান মাহমুদ চৌধুরী। তিনি অর্থসূচককে বলেন, পুঁজিবাজারে অনেকে আসতে চায়। কিন্তু এ ব্যাপারে পর্যাপ্ত ধারণা না থাকায় তারা বিনিয়োগ করতে পারেন না। এমন বিনিয়োগকারীদের জন্য আমরা চালু করেছি লঙ্কা-বাংলা নিশ্চিন্ত। এর মাধ্যমে আগ্রহীরা সহজেই উদ্বেগ ছাড়া বিনিয়োগ করতে পারবেন। আর তাদের বিনিয়োগের দায়িত্ব নিবে এ প্রতিষ্ঠান।

৩ বছর মেয়াদী এ পণ্যে সর্বনিম্ন ৫ হাজার থেকে সর্বোচ্চ পরিমাণে বিনিয়োগ করা যাবে। তিন বছর পর বিনিয়োগকারী মুনাফাসহ টাকা ফেরত পাবেন। চাইলে তারা সময় বাড়াতেও পারবেন।

এই কর্মকর্তা আরও বলেন, আমাদের এই পণ্যে বিনিয়োগ করলে বছর শেষে ১৫ শতাংশ লভ্যাংশ দিতে পারবো বলে আশাবাদী। এটি বাড়তেও পারে। এখানে শুধু শুরুতে ৫শ টাকা দিয়ে একটি নির্দিষ্ট ফরম পুরণ করে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করতে পারবেন।

নতুন এ পণ্যের বিষয়ে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান পরিচালন কর্মকর্তা হাসান জাভেদ চৌধুরী বলেন, আমাদের এখানে একটি ব্যাংক হিসাব থাকবে। বিনিয়োগকারীরা এ হিসাবে নিজেরা অর্থ জমা করবেন; চাইলে তারা অফিসে এসে টাকা জমা দিতে পারবেন। প্রতি মাসের কিস্তির টাকা পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ব্লুচিপস বা সর্বাধিক মৌল ভিত্তিসম্পন্ন কোম্পানির শেয়ারে বিনিয়োগ করা হবে।’

পুঁজিবাজারে টালমাটাল অবস্থায় ভালো কোম্পানির শেয়ারে বিনিয়োগ করে মুনাফা নিশ্চিত হওয়া সম্ভব কি না এমন প্রশ্নের জবাবে হাসান জাভেদ বলেন, এ দায়িত্ব আমাদের। আমরা তালিকাভুক্ত ব্লুচিপস কোম্পানিগুলোর বিভিন্ন ধরনের পারফরম্যান্স বিশ্লেষণ করে এ ধরনের একটি মাসিক সঞ্চয় প্রকল্প চালুর উদ্যোগ নিয়েছি।lankabangla1

আমাদের বিশ্লেষণে দেখা গেছে, ব্লুচিপস কোম্পানিগুলোতে দীর্ঘ মেয়াদে বিনিয়োগ করে ন্যূনতম ১৫ থেকে ২০ শতাংশ হারে মুনাফা পাওয়া সম্ভব।

বিনিয়োগকারীর কাছ থেকে টাকা নিয়ে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করে প্রতিষ্ঠান হিসেবে লঙ্কা-বাংলার লাভ কী? জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ ধরনের হিসাব খোলার শুরুতেই গ্রাহকের কাছ থেকে ৫০০ টাকা ফি নেওয়া হবে। এর বাইরে বছর শেষে শূন্য দশমিক ৫০ শতাংশ হারে ব্যবস্থাপনা ফি নিবে লঙ্কা-বাংলা ইনভেস্টমেন্টস। আর নির্ধারিত সময় শেষে ওই সঞ্চয় হিসাবে যে পরিমাণ মুনাফা হবে তার পুরোটাই পাবেন সঞ্চয়কারী।

মাসিক কিস্তিতে সঞ্চয়ের মাধ্যমে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের এ ধরনের প্রকল্প নতুন। তবে ভারতসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে মার্চেন্ট ব্যাংকগুলোতে এ ধরনের সঞ্চয় প্রকল্প রয়েছে।

হাসান জাভেদ বলেন, আমরা এই প্রকল্পটি এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে চালু করিনি। পরিচিতদের মাঝে প্রচার শুরু করেছি। এতেই ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি।

অর্থসূচক/গিয়াস/শাহীন

এই বিভাগের আরো সংবাদ