মুম্বাইয়ে হচ্ছে বিশ্বের প্রথম বস্তি জাদুঘর
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » টুকিটাকি

মুম্বাইয়ে হচ্ছে বিশ্বের প্রথম বস্তি জাদুঘর

আমরা হয়তো অনেকেই স্লামডগ মিলিয়নিয়র ছবিটি দেখেছি। কিন্তু সবার কী মনে আছে ছবিতে দেখানো সেই মুম্বাই শহরের ‘ধারাভি’ বস্তির কথা। মনে না থাকলে আবার স্মরণ করা যাক। কারণ সেই বস্তিতেই তৈরি হচ্ছে বিশ্বের প্রথম ‘বস্তি জাদুঘর’।

মুম্বাইয়ে হচ্ছে বিশ্বের প্রথম বস্তি জাদুঘর। ছবি সংগৃহীত

মুম্বাইয়ে হচ্ছে বিশ্বের প্রথম বস্তি জাদুঘর। ছবি সংগৃহীত

২০০৮ সালে ড্যানি বয়েল নির্মিত ‘স্লামডগ মিলিয়নিয়র’ ছবিটি থেকেই এই জাদুঘর তৈরির পরিকল্পনা মাথায় আসে। সেই সূত্র ধরে ধারাভি বস্তিতে তৈরি হচ্ছে ভ্রাম্যমান এই জাদুঘর। এই ‘বস্তি জাদুঘরে’ প্রদর্শিত হবে মুম্বাইয়ের ‘ধারাভি’ বস্তির জীবন-যাপনের সঙ্গে জড়িত মৃৎশিল্প, পোশাক শিল্প, কাঁসা-টিন-পিতল শিল্প ও পুন: নবায়নযোগ্য পণ্য।

এশিয়ার অন্যতম বৃহত্তম এ বস্তিতেই গড়ে তোলা জাদুঘরটি ফেব্রুয়ারির দুই তারিখ উদ্বোধন করা হবে। আর এটি মাত্র দু’মাসের জন্য চালু থাকবে।

এই অভিনব উদ্যোগটি গ্রহণ করেছেন স্পেনের শিল্পী জর্জ রুবিও। তিনি জানান, এটিই হতে যাচ্ছে বস্তিতে নির্মিত বিশ্বের প্রথম জাদুঘর।

ধারাভির বস্তির অলি গলিতে বাস করে ১০ লাখেরও বেশি মানুষ। এর মধ্যে রয়েছে অসংখ্য ছোট ছোট কারখানা। এসব কারখানায় কল্পনাযোগ্য এমন কিছু নেই, যা তৈরি হয় না।

স্লামডগ মিলিয়নিয়রের আকাশচুম্বী সাফল্যের পর ধারাভি হয়ে উঠেছে পর্যটন কেন্দ্র। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের পর্যটকদের এর প্রতি আকর্ষণ ক্রমাগত বাড়ছে। পর্যটকদের ঘুরিয়ে দেখাতে এখানে গাইডের সংখ্যাও ক্রমে বাড়ছে। ঘুরতে আসা পর্যটকদের ধারাভির বিভিন্ন কারখানা ঘুরিয়ে দেখান এসব গাইডরা।

২০১০ সালে ইংল্যান্ডের প্রিন্স চার্লস টেকসই জীবনযাপনের ক্ষেত্রে ধারাভিকে রোল মডেল হিসেবে উল্লেখ করেন।

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ