ধান ও পাম চাষে ঝুঁকিতে ম্যানগ্রোভ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » লিড নিউজ

ধান ও পাম চাষে ঝুঁকিতে ম্যানগ্রোভ

ধান এবং পাম চাষের কারণে ২০০০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত সময়ে ৩৮ শতাংশ ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চল উজাড় করা হয়েছে। ফলে ধীরে ধীরে হারিয়ে যেতে বসেছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চল।

সম্প্রতি এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য তুলে ধরা হয়েছে। প্রতিবেদনে সিঙ্গাপুর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক ডেনিয়েল রিসার্ড বলেন, থাইল্যান্ড এবং ফিলিপাইনের মতো দেশগুলোর ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চল ধ্বংসের জন্য দায়ী অ্যাকুয়াকালচার।  mangrove

তিনি বিবিসিকে জানান, বিশ্বের ৮টি দেশের উপর গবেষণা চালিয়ে দেখা গেছে, অ্যাকুয়াকালচারের কারণে ১৯৯০ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত সময়ে ৫৪ শতাংশ ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চল ধ্বংস করা হয়েছে। যেখানে পুকুর খনন করে মাছ চাষ করা হয়েছে।

তবে অবাক করার বিষয় যে, অ্যাকুয়াকালচারের ফলে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় ২০০০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত সময়ে ৩০ শতাংশ বনাঞ্চল উজাড় করা হয়েছে।

প্রসিডিংস অব দ্য ন্যাশনাল অ্যাকাডেমি অব সায়েন্স সাময়িকীতে গবেষণা প্রতিবেদনটি প্রকাশিত হয়েছে।


mangrove1

ড. রিসার্ড জানান, ২০০০ থেকে ২০১২ সালের মধ্যে মায়ানমারের ২৫০০০ হেক্টর বনাঞ্চল ধান চাষের জন্য উজাড় করা হয়। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় বনাঞ্চল উজাড়ের ১৬ শতাংশই পাম তেল চাষের জন্য দায়ী বলেও জানান তিনি।

অর্থসূচক/মেহেদী/শাহীন

এই বিভাগের আরো সংবাদ