যৌতুক চাওয়ায় বিয়ে বাতিল!
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » টুকিটাকি

যৌতুক চাওয়ায় বিয়ে বাতিল!

বিশ্বের লাখ লাখ নারীর অনুপ্রেরণার উৎস হতে পারেন ভারতের কেরালা রাজ্যের রেমায়া রামচন্দ্রন। হ্যাঁ, অবশ্যই হতে পারেন! কারণ তিনি যৌতুক প্রথার বিরুদ্ধে যে শক্তিশালী পদক্ষেপ নিয়েছেন তা সত্যিই দৃষ্টান্ত স্থাপন করার মতো।

রেমায়া রামচন্দ্রন। ছবি: জি নিউজ

রেমায়া রামচন্দ্রন। ছবি: জি নিউজ

সম্প্রতি যৌতুকের দাবি প্রত্যাখান করে বিয়ে বাতিল করেন রামচন্দ্রন। তাতেই তিনি ক্ষ্যান্ত হননি। সমাজ থেকে চিরতরে যৌতুক উড়িয়ে দেওয়ার জন্য নিজের ফেসবুক পেজে একটি পোস্ট করেন; যা সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। এতেই সরগরম গোটা সমাজ।

১৯৬২-র যৌতুক নিষেধাজ্ঞা আইনে যৌতুককে কঠোরভাবে নিষিদ্ধ করা হয়। কিন্তু ভারতীয় সমাজে এই প্রথা এখনও চালু রয়েছে। এমনকি এখনও মেয়ের বিয়েতে যৌতুকের দাবি মেটাতে গিয়ে সর্বস্বান্ত হয়ে পড়ে কনে পরিবার।

বিয়েতে বর টাকা ও স্বর্ণের দাবি করলে সেই বিয়ে বাতিল করেন রেমায়া। ভারতে যৌতুক, প্রথা ও সংস্কৃতির অংশ হওয়া সত্ত্বেও এর বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছেন তিনি।

রেমায়া মালায়লাম ভাষায় পোস্টটি করেন। এর ইংরেজি অনুবাদ হলো- যে আমাকে বিয়ে করতো সে ৫ লাখ রুপি ও ৫০ স্বর্ণ মুদ্রা দাবি করে। তার সঙ্গে আমার প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তখন সে বলতো সে শুধু আমাকেই চায়। কিন্তু যখন সে এসব দাবি করে তার বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ায়। আমি বিয়ে প্রত্যাখান করার সিদ্ধান্ত নিই।

এর তিন দিন পর সব মহল থেকে সমর্থন পাওয়ায় অভিভূত হয়েছেন রেমায়া। তার পদক্ষেপকে স্বাগত জানানোই সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

দিনে দিনে যৌতুক নিয়ে সচেতনতা বাড়াই বেশ খুশিও রেমায়া রামচন্দ্রন।

 

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ