ডাচ রানীর পরিদর্শন; সাজছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » ব্যাংক-বিমা

ডাচ রানীর পরিদর্শন; সাজছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক

নেদারল্যান্ডের রানী ম্যাক্সিমা জরিগুয়েতা সেরুতি ৩ দিনের বিশেষ সফরে বর্তমানে বাংলাদেশে অবস্থান করছেন। এ সফরে তিনি বাংলাদেশ ব্যাংক পরিদর্শন করবেন বলে ব্যাংক সূত্র জানিয়েছে।

আগামীকাল মঙ্গলবার দুপুরে রানীর বাংলাদেশ ব্যাংক পরিদর্শনে আসার কথা রয়েছে।

ছবি সংগহীত

ছবি সংগহীত

বাংলাদেশ ব্যাংক সূত্র জানায়, জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে সবার জন্য অর্থনৈতিক সেবার বিষয়ে সচেতনতা বাড়ানোই ডাচ রানীর এ সফরের উদ্দেশ্য। এসময় তিনি বাংলাদেশ ব্যাংকের আর্থিক অন্তর্ভূক্তিকরণ কার্যক্রম, নারীর ক্ষমতায়ন, মানবিক ব্যাংকিং কার্যক্রমও পর্যবেক্ষণ করবেন।

তিনি বাংলাদেশের নিম্নআয়ের মানুষের জীবনমান উপলব্ধি করতে চান। একইসঙ্গে তিনি মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে নারী উদ্যোক্তা, গার্মেন্টস কর্মী, অন্যান্য গ্রাহক ও এজেন্টদের সঙ্গেও আলাপ করবেন বলে ব্যাংক সূত্রে জানা যায়। পাশাপাশি তিনি ব্যাংক ও ক্ষুদ্রঋণের সঙ্গে সম্পৃক্ত ব্যক্তিদের সঙ্গেও কথা বলবেন।

বাংলাদেশ ব্যাংক গভর্নর সচিবালয়ের মহাব্যবস্থাপক ও সহকারি মুখপাত্র এএফএম আসাদুজ্জামান জানিয়েছেন, কেন্দ্রীয় ব্যাংক পরিদর্শন শেষে আগামীকাল দুপুরে গভর্নর ড. আতিউর রহমানের সঙ্গে রানীর একান্ত বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে।

এদিকে রানীর আগমন উপলক্ষে ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে বাংলাদেশ ব্যাংকে। সোমবার বিকেলে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, শেষ সময়ের প্রস্তুতি নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। ব্যাংকের ভিতরে-বাহিরে চলছে ধোয়া-মোছার কাজ। সৌন্দর্য্য বর্ধনের কাজও চলছে জোরেশোরে।

এছাড়া রানীর সফরকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশ ব্যাংকে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে সপ্তাহখানেক আগ থেকেই শুরু হয় নানা তৎপরতা। সাংবাদিকসহ সাধারণ মানুষকে ব্যাংকে প্রবেশের ক্ষেত্রে কঠোর তল্লাশির মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে।

সূত্র জানায়, এ সফরে রানী ম্যাক্সিমা রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতসহ সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। এর বাইরে সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, বেসরকারি খাত ও উন্নয়ন সহযোগী অংশীদারদের সঙ্গেও তার বৈঠকের কথা রয়েছে।

উন্নয়নের জন্য অন্তর্ভুক্তিমূলক অর্থনৈতিক ব্যবস্থা বা ইনক্লুসিভ ফাইন্যান্স ফর ডেভেলপমেন্ট বিষয়ক বিশেষ পরামর্শক হিসেবে রানী ম্যাক্সিমাকে ২০০৯ সালে দূত হিসেবে মনোনীত করেন জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুন।

আগামী বুধবার বিকেলে সংবাদ সম্মেলন করে জাতিসংঘের এই বিশেষ দূতের সফরের বিভিন্ন দিক তুলে ধরা হবে। ওইদিন রাতেই ঢাকা ছাড়বেন ম্যাক্সিমা।

এর আগে সোমবার সকাল ৮টা ২৫ মিনিটে রানীকে বহনকারী বিমানটি শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ড. আতিউর রহমান এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বিমানবন্দরে তাকে স্বাগত জানান।

অর্থসূচক/শাফায়াত/

এই বিভাগের আরো সংবাদ