চুয়াডাঙ্গায় স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যার অভিযোগ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » খুলনা

চুয়াডাঙ্গায় স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যার অভিযোগ

চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার পদ্মবিলা ইউনিয়নের গোপীনাথপুর গ্রামে আলেয়া খাতুন (৪০) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। আলেয়া খাতুন ওই গ্রামের রহম আলীর স্ত্রী। আজ রোববার ভোররাতে এই ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছেন রহম আলী।

Chuadanga

গুগল মানচিত্রে চুয়াডাঙ্গা।

স্থানীয়দের অভিযোগ, গভীর রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় আলেয়াকে গলা কেটে হত্যা করেছে তার স্বামী রহম আলী। এরপর সে পালিয়ে যায়।

আলেয়ার ভাগনে ইউনুস আলী জানান, পরকীয়ার মিথ্যা অভিযোগে গত তিন বছর ধরে নিজের স্ত্রী আলেয়াকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে আসছিলেন রহম আলী। এই নিয়ে গোপীনাথপুর গ্রামে কয়েক দফা সালিসও হয়।

আলেয়া-রহম দম্পতির ছোট ছেলে সুরুজ মিয়া (১৮) বলেন, বাবা প্রায়ই মাকে খুন করবে বলে হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছিলেন। তবে, গতকাল শনিবার রাতে তাকে অনেকটা স্বাভাবিক দেখা গিয়েছিল।

তাদের মেয়ে রহিমা খাতুন (১৬) জানান, রাতে সে তার ছোট বোন হালিমাকে (৯) নিয়ে ঘরে চৌকির ওপর ঘুমিয়েছিল। আর বাবা-মা ঘরের মেঝেতে ঘুমিয়েছিলেন। ভোররাতের দিকে একটি শব্দে তার ঘুম ভেঙে যায়। চোখ খুলে দেখতে পায় তার বাবা ধারালো অস্ত্র হাতে করে দ্রুতগতিতে ঘর থেকে বের হয়ে যাচ্ছেন। আর ঘরের মেঝেতে মায়ের রক্তাক্ত মরদেহ পড়ে আছে। এরপর বাড়ির অন্যদের সে খবরটি জানায়।

সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এএইচএম কামরুজ্জামান বলেন, প্রাথমিকভাবে জানা গেছে, দাম্পত্য কলহের কারণেই খুনের ঘটনা ঘটেছে। মরদেহ উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

এই বিভাগের আরো সংবাদ