কুষ্টিয়ায় অটোরিকশা চালকদের অবরোধ, পুলিশের লাঠিপেটা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » অটোমোবাইল

কুষ্টিয়ায় অটোরিকশা চালকদের অবরোধ, পুলিশের লাঠিপেটা

 

মহাসড়কে অটোরিকশা চালানোর দাবিতে কুষ্টিয়া-মেহেরপুর সড়ক অবরোধ করেছেন সিএনজিচলিত অটোরিকশা মালিক ও চালকেরা। অবরোধকারীদের  ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ লাঠিপেটা করে। বৃহস্পতিবার সকালে সদর উপজেলার ত্রিমোহনী ও মিরপুর উপজেলার চার মাইল নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।

কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করেন সিএনজিচালিত অটোরিকশার চালকেরা। এতে সড়কের উভয় পাশে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়।

কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করেন সিএনজিচালিত অটোরিকশার চালকেরা। এতে সড়কের উভয় পাশে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়।

অবরোধকারীরা মহাসড়কে সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালানোর ক্ষেত্রে সরকারি নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার দাবি জানান। এতে সড়কের উভয় পাশে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়।

পুলিশ জানায়, সকাল সাড়ে নয়টার দিকে প্রথমে কুষ্টিয়া শহরতলির ত্রিমোহনী এলাকায় আন্দোলনকারীরা সড়কের ওপর অটোরিকশা রেখে অবরোধ শুরু করেন। এ সময় তাঁদের মাথায় সাদা কাপড় বাঁধা ছিল। একপর্যায়ে তাঁরা পাশের মিরপুর উপজেলার চারমাইল এলাকায় কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়কও অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখান।

কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধের ফলে যাত্রীদের প​ড়তে হয় দুর্ভোগে।

কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধের ফলে যাত্রীদের প​ড়তে হয় দুর্ভোগে।

kustia

মহাসড়কে সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালানোর দাবিতে কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক অবরোধ করেছেন অটোরিকশার মালিক ও চালকেরা। একপর্যায়ে অবরোধকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ লাঠিপেটা করে।

এতে কুষ্টিয়া-মেহেরপুর আঞ্চলিক মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেলে যাত্রীরা চরম দুর্ভোগের শিকার হন। অবরোধকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ লাঠিপেটা করলে অনেক চালক পাশের খালে লাফি​য়ে পড়েন।

কুষ্টিয়া মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী জালাল উদ্দীন বলেন, সরকারের নিষেধাজ্ঞা থাকায় সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালাতে দেওয়া হচ্ছে না। চালকদের সড়ক অবরোধ করা ঠিক হয়নি। এতে জনগণের দুর্ভোগ বেড়েছে। তাই অবরোধকারীদের সরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

এই বিভাগের আরো সংবাদ