ভারতে 'তিন তালাক' বদলের চিন্তা
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » আন্তর্জাতিক

ভারতে ‘তিন তালাক’ বদলের চিন্তা

ভারতের মুসলিম সমাজে চলমান তালাক প্রথার পরিবর্তন আনার চেষ্টা করছেন শীর্ষ মুসলিম নেতারা। মুসলমানদের সংগঠন ‘মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ড’ এর শীর্ষ ধর্মীয় নেতারা বলছেন, একসঙ্গে তিনবার তালাক উচ্চারণ করে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটানোর রীতি শরিয়াবিরোধী।tintalak

বিবিসির বাংলার এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে,  সাধারণত মুসলিম সমাজে পরপর তিনবার তালাক দেওয়া হলে যেকোনো বিয়ে ভেঙ্গে যাবে এমন রীতি প্রচলিত। কিন্তু এখন মুসলমান সমাজের শীর্ষ নেতারা মনে করেন, প্রতিবার তালাক উচ্চারণ করার পরে বেশ কিছুদিনের ব্যবধান প্রয়োজন।

যাতে স্বামী-স্ত্রী নিজেদের মধ্যে বা তাদের পরিবারগুলোও আলাপ আলোচনা করে তালাকের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করার সুযোগ পান। আগের নিয়মে স্বামী-স্ত্রীর এতোদিনের সম্পর্ক শুধু তিনবার তালাক শব্দের উচ্চারণে ভেঙ্গে যাবে এমনটি মানতে নারাজ তারা। ধর্মীয় নেতারা এখন এ পদ্ধতিকে শরিয়াবিরোধীও বলছেন। এবং এর পরিবর্তনের পক্ষে মত দিচ্ছেন।

অন্যদিকে মুসলমান নারীদের ওপর করা একটি সমীক্ষায় জানা গেছে যে, ৯২% ই চান মৌখিক তালাকের ব্যবস্থাটাই উঠিয়ে দেওয়া হোক। ওই সমীক্ষা চালিয়েছিল যে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, সেই ভারতীয় মুসলিম মহিলা আন্দোলনের প্রধান নূরজাহান সাফিয়া নিয়াজ বিবিসি বাংলাকে বলছিলেন, “বিবাহের সময়ে যদি পুরুষ এবং নারী – দুজনেরই সম্মতি নিতে হয় – ‘কবুল হ্যায়’ বলে, তাহলে বিচ্ছেদের সময়ে কেন শুধু পুরুষের সিদ্ধান্তে সেই বিয়ে ভেঙ্গে যাবে”!

মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য জাফরিয়াব জিলানি বলেছেন, “বোর্ড অনেকদিন ধরেই বলে আসছে যে একসঙ্গে তিনবার তালাক উচ্চারণ করে বিবাহ বিচ্ছেদ অনুচিত, এটা ইসলামী অনুশাসনে একটা গুনাহ। কিন্তু তা স্বত্ত্বেও এই ব্যবস্থা চলছে”। বোর্ড তাই এবার কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

 জিলানি আরও বলেছেন, নিয়ম না মানলে এখন থেকে জরিমানার ব্যবস্থা করা হবে। আর জরিমানার টাকা তুলে দেওয়া হবে তালাকপ্রাপ্ত নারীর হাতে, যাতে তিনি নিজের আর সন্তানদের দেখভাল করতে পারেন।

সমীক্ষায় আরও একটি তথ্য উঠে এসেছে – মুসলিম নারীদের ৮৮ % চান সেই সব কাজিদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হোক, যাঁরা তালাকের লিখিত নোটিশ নিয়ে নারীদের কাছে হাজির হন। নারীদের স্বামীরা নিজে স্ত্রীর সামনে হাজির না হয়েই তালাক দিয়ে দেন কাজিদের মাধ্যমে। আবার টেলিফোন, বা ফেসবুক, স্কাইপ বা ইমেইল করেও তালাক স্ত্রীকে তালাক দেন অনেক পুরুষ।

 ইরা/

এই বিভাগের আরো সংবাদ