বাগেরহাটের তিন রাজাকারের রায় যেকোনো দিন
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » জাতীয়

বাগেরহাটের তিন রাজাকারের রায় যেকোনো দিন

একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে বাগেরহাটের তিন রাজাকারের বিরুদ্ধে মামলার রায় যে-কোনো দিন ঘোষণা করা হতে পারে।

এরা হলেন-শেখ সিরাজুল হক ওরফে কসাই সিরাজ, আবদুল লতিফ তালুকদার ও খান আকরাম হোসেন।

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১

মঙ্গলবার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১  উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে রায় অপেক্ষমাণ রাখেন।

সমাপনী দিনে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ব্যারিষ্টার সৈয়দ সাইয়েদুল হক সুমন এবং আসামি পক্ষের  আবুল হোসেন ও ব্যারিস্টার এম সারোয়ার হোসেন এ যুক্তি উপস্থাপন করেন।

২০১৪ সালের ৫ নভেম্বর বাগেরহাটের এই তিন রাজাকারের  বিরুদ্ধে একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধ হত্যা, গণহত্যা , লুণ্ঠন, ধর্মান্তকরণসহ মোট সাতটি অপরাধে অভিযোগ গঠন করে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

এর আগে ১৫ সেপ্টেম্বর এই তিনজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ আমলে নেন ট্রাইব্যুনাল-১। আসামি আবদুল লতিফ তালুকদার জামিন চাইলেও তা নাকচ করে দিয়ে সেদিন সিরাজ মাস্টারের পক্ষে মামলা পরিচালনার জন্য আবুল হোসেনকে রাষ্ট্র কর্তৃক আইনজীবী নিয়োগ দেওয়া হয়। অভিযোগ গঠনের শুনানিতে যুক্তি উপস্থাপন করেন আইনজীবী ব্যারিস্টার সৈয়দ সাইয়েদুল হক সুমন। তিনজনের মধ্যে সিরাজ মাস্টারের বিরুদ্ধে ছয়টি এবং আবদুল লতিফ ও খান আকরামের বিরুদ্ধে চারটি করে অভিযোগ রয়েছে।

ট্রাইব্যুনাল-১ গত বছরে ১০ জুন এই তিনজনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করলে কচুয়া থানা পুলিশ ১১ জুন লতিফ তালুকদারকে আটক করে। এরপর ১৯ জুন রাজশাহী থেকে আকরাম হোসেন খানকে গ্রেপ্তার করা হয়। ২০ জুলাই গ্রেপ্তার হন কসাই সিরাজ। প্রসিকিউশনের তদন্ত সংস্থা বলছে,মুক্তিযুদ্ধ শুরু হলে আসামিরা বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে অস্বীকার করে দখলদার পাকিস্তানি বাহিনীকে সহযোগিতা করতে রাজাকার বাহিনীতে যোগ দেয়।

এই বিভাগের আরো সংবাদ