'দোষ স্বীকার না করলেও শাস্তি দিতে পারবে মোবাইল কোর্ট'
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » লিড নিউজ

‘দোষ স্বীকার না করলেও শাস্তি দিতে পারবে মোবাইল কোর্ট’

দোষ স্বীকার না করলেও শাস্তির বিধান রেখে মোবাইল কোর্ট (সংশোধন) আইন-২০১৫ এর খসড়ার নীতিগত চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। আজ সোমবার জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার ৬৬তম বৈঠকে এ অনুমোদন দেওয়া হয়।law

বৈঠক শেষে সচিবালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন ভূইঞা এ কথা জানান।

তিনি জানান, এই আইন সংশোধনীর ফলে দ্রুত ন্যায় বিচার নিশ্চিতে ভেজালবিরোধী অভিযান, ইভটিজিং, দুর্নীতিমুক্ত পাবলিক পরীক্ষাসহ ৯৩টি আইনের ক্ষেত্রে দোষ স্বীকার না করলেও সাক্ষ্য, ও পারিপাশ্বিক পরিবেশ বিবেচনায় শাস্তি দিতে পারবে মোবাইল কোর্ট।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব আরও জানান, মোবাইল কোর্ট (সংশোধন) আইন ২০০৯ সালের ৫৯ নম্বর আইন। ২০০৯ সালে এর বাস্তবায়ন করা হয়। আরও কার্যকর করতে এই আইনে সংশোধন আনা হয়েছে। মূলত ২টি পরিবর্তন এনে আইনটির পরিধি বিস্তৃত করা হয়েছে।

মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন ভূইঞা জানান, বর্তমান মোবাইল কোর্ট আইনে দোষ স্বীকার করলেই শাস্তি দেওয়া যায়। সংশোধিত আইনে দোষ স্বীকার না করলেও স্বাক্ষ্য, পারিপার্শ্বিক পরিবেশ বিবেচনায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাস্তি দিতে পারবেন। এছাড়া তথ্য যোগাযোগ ও প্রযুক্তির ব্যবহার যুক্ত করা হয়েছে এতে। ইলেকট্রিক স্বাক্ষর নেওয়া যাবে। একই সঙ্গে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা চাইলে বিশেষজ্ঞদের সাহায্য নিতে পারবেন।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এটি কোনভাবেই রাজনৈতিক পক্ষকে ঘায়েলে ব্যবহার করা হবে না। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা কোনোভাবেই জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের সমকক্ষ হবেন না।

আজ জাতীয় সংসদে একই বৈঠকে বাংলাদেশ শিল্পপ্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ আইন- ২০১৫ এর খসড়া এবং পাট আইন-২০১৫ খসড়ার নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

এছাড়া গত ৩০ মার্চ থেকে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত শিল্পমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলের যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা সফর এবং ২০-২১ মে প্যারিসে অনুষ্ঠিত বিজনেস অ্যান্ড ক্লাইমেট সামিটে বনমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেম প্রতিনিধি দলের অংশগ্রহণ সর্ম্পকে মন্ত্রিসভায় বিস্তারিত তুলা ধরা হয়।

এএ/

এই বিভাগের আরো সংবাদ