শনিবার, অক্টোবর ৩১, ২০২০
Home জাতীয় রাজনীতি এদেশের মানুষ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে বিশ্বাসী: প্রধানমন্ত্রী

এদেশের মানুষ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে বিশ্বাসী: প্রধানমন্ত্রী

এদেশের মানুষ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে বিশ্বাসী: প্রধানমন্ত্রী
যশোরের অভয়নগরে নওয়াপাড়ায় শংকরপাশা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে ভাষন দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী।

hasinaবাংলাদেশের মানুষ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে বিশ্বাস করে। বাংলাদেশের মানুষ হানাহানি, মারামারি, কাটাকাটি এই ধরনের কোনো সংঘাত চায় না বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ সময় তিনি জাতি ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সবাইকে একসাথে চলার এবং উন্নয়ন করার কথা বলেন।

বৃহস্পতিবার বিকেলে যশোরের অভয়নগর উপজেলার নওয়াপাড়ায় শংকরপাশা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক জনসভায় তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের মানুষ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে বিশ্বাসী। তারা হানাহানি-মারামারি পছন্দ করেন না। তিনি বিএনপি চেয়াপার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে বলেন, বিএনপি নেত্রী এখন জামায়াতের আমির হয়ে গেছেন। তিনি জামায়াতকে নিয়ে বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছেন।

তিনি বলেন, জামায়াত শিবির ১৯৭১ সালে দেশের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছিল। আবার ১৯৪৭ সালে পাকিস্তান হওয়ার সময়ও পাকিস্তান-জামায়াত দেশের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছিল।

খালেদা জিয়ার উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, গোলাপি রে, গোলাপি, ট্রেন তো মিস করলি।

তিনি বলেন, বিএনপি নেত্রী নির্বাচনকে প্রতিহত করতে জামায়াত শিবিরকে সাথে নিয়ে দেশে অনেক অরাজকতা সৃষ্টি করেছেন। হিন্দু সম্প্রদায়ের নিরীহ মানুষেরা নির্বাচনে ভোট দেওয়ার কারণে তাদের শতশত বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া থেকে শুরু করে অনেক মা-বোনের সম্মান হানি করেছেন।

তিনি আর ও বলেন, বিরোধী দলীয় নেত্রী এর আগেও হরতাল-অবরোধের নামে অনেক গাড়ি পুড়িয়েছেন এবং অনেক সাধারণ মানুষকে পুড়িয়ে হত্যা করেছেন। এছাড়াও তিনি আন্দোলনের নামে অনেক মসজিদে আগুন দিয়েছেন, কুরআন শরীফ পুড়িয়েছেন, অনেক বইয়ের দোকান পুড়িয়েছেন।

বেগম খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে শেখ হাসিনা বলেন, বিএনপি নেত্রীর যতো রাগ গোপালগঞ্জের প্রতি। গোপালগঞ্জের প্রতি ওনার এতো রাগ কেন? গোপালগঞ্জের প্রতি ওনার রাগের কারণ হলো গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জন্মেছেন। তাই তিনি গোপালগঞ্জের নাম পর্যন্ত মুছে ফেলতে চাইছেন। তিনি গোপালগঞ্জের এক মহিলা পুলিশকে গোপালি বলে ধিক্কার দিয়েছেন কিন্তু আমি বলব গোপালগঞ্জের গোপালিরা গোপালি নয় কপালি হয়।

তিনি জামায়াত শিবিরকে উদ্দেশ্য করে বলেন, দেশে সকল সাম্প্রদায়িক হামলার পেছনে জামায়াত শিবির রাজাকারদের হাত। এই জামায়াত শিবির রাজাকাররা সকল সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে যাছে। এই জামায়াত শিবিরের কর্মকান্ড রুখতে সবাইকে এক হয়ে কাজ করতে হবে।

তিনি নির্বাচনে যারা সকল বাধা-বিপত্তি অতিক্রম করে ভোট দিয়েছেন তাদের সবাইকে অভিনন্দন জানান।