আইসিসিতে পর্যবেক্ষণ পাঠিয়েছে বিসিবি
শুক্রবার, ৭ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » ক্রিকেট

আইসিসিতে পর্যবেক্ষণ পাঠিয়েছে বিসিবি

ক্ষোভে আম্পায়ারদের কুশপত্তলিকা দাহ করে ক্রিকেট ভক্তরা। ছবি সংগৃহীত

ক্ষোভে আম্পায়ারদের কুশপত্তলিকা দাহ করে ক্রিকেট ভক্তরা। ছবি সংগৃহীত

বিশ্বকাপ ক্রিকেটের কোয়ার্টার ফাইনালে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ নিয়ে নিজেদের পর্যবেক্ষণ আইসিসিতে পাঠিয়েছে বিসিবি। বিসিসির সিইও নিজাম উদ্দিন আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে ওই ম্যাচের আম্পায়ারদের শাস্তির পাশাপাশি ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইসিসিতে আপিল দায়ের করতে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ম্যানেজার, ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি ও ক্রীড়া সচিবকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মো. ইউনুস আলী আকন্দ।

কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচের  ৪০তম ওভারে রোহিত শর্মাকে করা রুবেল হোসেনের বল ‘নো’ ডাকেন আম্পায়ার আলিম দার ও ইয়ান গোল্ড। পরে টিভি রিপ্লেতে দেখা যায়, রুবেলের বলটা কিছুতেই ‘নো’ ছিল না। প্রশ্ন ওঠে মাহমুদউল্লাহর আউট নিয়েও।

এ ছাড়া মাশরাফি বিন মুর্তজার করা ৩৪তম ওভারে সুরেশ রায়নার আউট হওয়া-না হওয়া নিয়েও প্রশ্নের অবকাশ রয়েছে।

সব মিলিয়ে আম্পায়ারদের বিতর্কিত সিদ্ধান্তে ক্ষোভে ফেটে পড়ে বাংলাদেশ। সে ঘটনার প্রেক্ষাপটে আম্পায়ারদের শাস্তির পাশাপাশি ক্ষতিপূরণ চাইতে উল্লিখিত ৩ ব্যক্তিকে নোটিশ দিয়েছেন আইনজীবী ইউনুস আলী।

বিতর্কিত আম্পায়ার আলিম দার ও ইয়ান গৌল্ড। ছবি সংগৃহীত

বিতর্কিত আম্পায়ার আলিম দার ও ইয়ান গৌল্ড। ছবি সংগৃহীত

বিশ্বকাপের দ্বিতীয় কোয়ার্টার ফাইনালের ওই ম্যাচে বাংলাদেশ ভারতের বিপক্ষে ১০৯ রানে পরাজিত হয়। অবশ্য ম্যাচের পরই বিসিবি জানিয়েছিল, এ ব্যাপারে আইসিসির কাছে আপিল করা হবে।

পরে আইসিসি সভাপতি আ হ ম মুস্তফা কামাল নিজেও ওই ম্যাচের আম্পায়ারিং নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। যার রোষানলে পড়ে বিশ্বকাপে জয়ী দলের হাতে শিরোপা তুলে দিতে পারেননি তিনি।

আইসিসির নিয়ম ভেঙে সভাপতি মুস্তফা কামালকে উপেক্ষা করে বিজয়ীদের হাতে শিরোপা তুলে দেন চেয়ারম্যান এন শ্রীনিবাসন। এ নিয়েও ক্রিকেট বিশ্বে শুরু হয় তুমুল সমালোচনা।

বিসিবির আপিলের প্রেক্ষিতে আইসিসি কী কী উদ্যোগ নিতে পারে? এ প্রশ্নের জবাবে বিসিবির প্রধান নির্বাহী বললেন, ‘সেটা ঠিক বলতে পারব না। ওই আম্পায়ারদের পরে কোনো ম্যাচে দায়িত্ব পালন করতে দেওয়া হবে কি হবে না, সেটাও আইসিসির ব্যাপার।

রুবেলের বলে রোহিত শর্মা আউট হলেও তা নো বল ধরেন দুই আম্পায়ার। ছবি সংগৃহীত

রুবেলের বলে রোহিত শর্মা আউট হলেও তা নো বল ধরেন দুই আম্পায়ার। ছবি সংগৃহীত

আসলে প্রত্যেকটা ম্যাচ বা টুর্নামেন্টের পর বল টু বল সিদ্ধান্ত পর্যালোচনা করা হয়। তখন ভুলের হার দেখা হয়। কোয়ার্টার ফাইনালের সেই ম্যাচে কী কী ভুল ছিল, তা নিশ্চয় বের হবে এবং সে অনুযায়ী আইসিসি সিদ্ধান্ত নেবে। তবে যা-ই হোক, ম্যাচের ফলে তো আর পরিবর্তন আসবে না।

এই বিভাগের আরো সংবাদ