জিয়াকে হত্যার প্রমাণ পায়নি পুলিশ

jiah_khanধুমকেতু হয়ে আগমন ঘটে ছিল তার। নিঃশব্দ, গজনি এবং হাউজফুলের মত দর্শক নন্দিত সিনেমার মধ্যে দিয়ে মাত্র তিন বছরের মধ্যে ভবিষ্যত বলিউড সম্রাজ্ঞী হিসেবে পাকাপোক্ত করেছিলেন নিজের অবস্থান। কিন্তু উল্কার মত দপ করে নিভে যাবেন এমনটি ঘুণাক্ষরেই চিন্তা করেনি কেউ। হাজারো ভক্তের হৃদয় রাণী জিয়া খানকে সিনেমার পর্দায় দেখা যাবে না এমনটি বিশ্বাস করাটাও দায় ছিল অনেকের কাছে। তাই তার পরিবার এবং ভক্তরা জিয়ার প্রয়াণকে মেনে নিতে পারেননি আত্মহত্যা বলে, সন্দেহের তীর ছুটে গিয়েছিল প্রেমিক সুরাজ পাঞ্চলির দিকে। কিন্তু সম্প্রতি মুম্বাই পুলিশ জানিয়েছে, জিয়াকে হত্যার কোন প্রমাণ খুঁজে পাননি তারা। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

পুলিশের একজন উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, জিয়াকে হত্যা করা হয়েছে এমন কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তার মায়ের সরবরাহকৃত কোন উপাত্তই এটাকে হত্যা হিসেবে প্রমাণ করার জন্য যথেষ্ট নয়।

পুলিশ আরো জানায়, জিয়ার নখে খুঁজে পাওয়া মানুষের শরীরের টিস্যুগুলো তার নিজের।

তবে পুলিশের এই দাবিকে অস্বীকার করেছেন তার মা রাবেয়া খান। তার আইনজীবি ডিনেশ তিওয়ারি জানান, আমাদের সরবরাহকৃত প্রমাণ পুলিশ ভালভাবে যাচাই করেনি। তাই আমরা আগামি সপ্তাহে মুম্বাই হাইকোর্টের শরণাপন্ন হব।