'পতাকা-স্বাধীনতা-ভুখণ্ড হলেও অর্থনৈতিক মুক্তি হয়নি'
বৃহস্পতিবার, ২৮শে মে, ২০২০ ইং
today-news
brac-epl
প্রচ্ছদ » জাতীয়

‘পতাকা-স্বাধীনতা-ভুখণ্ড হলেও অর্থনৈতিক মুক্তি হয়নি’

দুদকের চেয়ারম্যান বদিউজ্জামান

দুদকের চেয়ারম্যান বদিউজ্জামান

৯ মাসের সংগ্রামে আমরা একটি পতাকা, স্বাধীনতা ও ভূখণ্ড পেয়েছি; এরপর ৪৪ বছর অতিক্রম করলেও অর্থনৈতিক মুক্তি মেলেনি বলে মনে করেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান মো. বদিউজ্জামান।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯ টায় রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে ‘দুর্নীতি প্রতিরোধ সপ্তাহ-২০১৫’ উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ মন্তব্য করেন।

দুদক চেয়ারম্যান বলেন, দেশের অর্থনৈতিক মুক্তির প্রধান অন্তরায় দুর্নীতি। পাকিস্তানের শোসন থেকে মুক্তির জন্য ৯ মাসের সংগ্রামে আমরা একটি পতাকা, স্বাধীনতা ও ভূখণ্ড পেয়েছি। তবে স্বাধীনতার ৪৪ বছর অতিক্রম করলেও দেশকে দুর্নীতি মুক্ত করা যায়নি। ফলে অর্থনৈতিক মু্ক্তিও এখনো সম্ভব হয়নি।

তিনি বলেন, সাধারণ মানুষকে দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাগিয়ে তোলার প্রত্যয় নিয়েই দুদক বিভিন্ন প্রতিরোধমূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে। এর অংশ হিসেবে দুর্নীতি প্রতিরোধে সচেতন ও দুর্নীতি বিরোধি মনোভাব জাগিয়ে তোলার জন্য প্রতি বছর দুর্নীতি প্রতিরোধ সপ্তাহ পালন করা হয়। এর মাধ্যমে সমাজের সব স্তরের মানুষ দুর্নীতিবাজদের ঘৃণা করতে শিখবে।

বদিউজ্জামান বলেন, ২৬ মার্চে মহান স্বাধীনতা ঘোষণায় আমরা মুক্তি পেয়েছি। এই দিনের তাৎপর্যকে সামনে রেখেই দুর্নীতি প্রতিরোধ সপ্তাহ ঘোষণা করা হয়েছে। সাধারণ মানুষকে নিয়ে দুর্নীতির বিরুদ্ধে সংগ্রাম করে অর্থনৈতিক মুক্তি নিয়ে আসতে হবে।

এসময় দুদক কমিশনার ড. নাসির উদ্দিন, সচিব মো. মাকসুদুল হাসান খানসহ কমিশনের সব স্তরের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে ‘৫ম দুর্নীতি প্রতিরোধ সপ্তাহ’ উপলক্ষে নানা কর্মসূচি পালন করছে দুদক। এর মধ্যে বৃহস্পতিবার সকালে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নিয়ে সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে দুপুরে দুদক কার্যালয়ের মিডিয়া সেন্টারে আলোকচিত্র ও পোস্টার প্রদর্শনী উন্মুক্ত করণ। শুক্রবার জাতীয় মসজিদসহ সব মসজিদে জুমা-পরবর্তী দুর্নীতিবিরোধী আলোচনা এবং রাতে টেলিভিশনে টকশোতে দুর্নীতিবিরোধী কর্মকাণ্ডের ওপর পর্যালোচনা।

এছাড়া ২৮ মার্চ বেলা ১১টায় ওসমানী মিলনায়তনে সততা সংঘের সদস্যদের সমাবেশ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। ২৯ মার্চ সকাল ১০টায় রাজধানীতে শোভাযাত্রা ও মানববন্ধন, বিকেলে দুর্নীতিবিরোধী অনুসন্ধানী প্রতিবেদনের জন্য গণমাধ্যম সাংবাদিকদের পুরস্কার প্রদান ও আলোচনা সভা। ৩০ মার্চ দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির শ্রেষ্ঠ মহানগর, জেলা ও উপজেলা সদস্যদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ, ৩১ মার্চ নিজস্ব ওয়েবসাইট উন্মুক্তকরণ এবং ১ এপ্রিল ‘রাজনৈতিক অঙ্গীকার ও প্রশাসনিক সংস্কার, দুয়ে মিলে হতে পারে দুর্নীতির প্রতিকার’ শীর্ষক সেমিনার আয়োজন করা হবে।

এইউ নয়ন/এসএল/

এই বিভাগের আরো সংবাদ