রামুতে ছিন্নমূল শীতার্তদের পাশে সেনা সদস্যরা

Distribution of blanket at Ramu

Distribution of blanket at Ramu 1রামুতে ছিন্নমূল গরীব শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছেন সেনাবাহিনীর সদস্যরা।

বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহারে সব সম্প্রদায়ের মানুষের মধ্যে আনুষ্ঠানিকভাবে শীতবস্ত্র বিতরণ করেন তারা।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী রামু গ্যারিসনের অধিনায়ক লে. কর্নেল পিএসসি গোলাম মাহিউদ্দিন চৌধুরী মাহি। এতে উত্তর মিটাছড়ি ১০০ফুট সিংহ শয্যা গৌতম বুদ্ধমূর্তি ও বিমুক্তি বিদর্শন ভাবনা কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষ করুণাশ্রী থের, রামু সীমা বিহারের আবাসিক ভিক্ষু শীলপ্রিয়, বৌদ্ধ নেতা সুরেশ বড়ুয়া বাঙ্গালি, বিপুল বড়ুয়া আব্বু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একান্ত সাক্ষাৎকারে এ লে. কর্নেল পিএসসি গোলাম মাহিউদ্দিন চৌধুরী মাহি বলেন, “বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সদস্যরা যে কোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগে দেশের মানুষের পাশে থেকেছে এবং আগামি সময়েও থাকবে। আমাদের শীতবস্ত্র (কম্বল) বিতরণ কার্যক্রম পুরো শীত মওসুম এ চলমান থাকবে।”

এর আগে, কক্সবাজারের রামুতে গত সালের ভয়াবহ সহিংসতার পর সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে নতুন শৈলীতে নির্মিত বৌদ্ধ মন্দিরগুলো পরিদর্শন করেছেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। মঙ্গলবার বেলা ১২টায়  ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মঈন উদ্দিন মাহামুদ চৌধুরী পিএসসি’র নেতৃত্বে সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা রামুতে ওইসব বিহার পরিদর্শনে আসেন।

পরিদর্শনকালে কর্মকর্তারা রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহারের অধ্যক্ষ ও বাংলাদেশ ভিক্ষু মহাসভার প্রাক্তন সভাপতি সত্যপ্রিয় মহাথের’র সাথে কুশল বিনিময় করেন। এ সময় লে. কর্নেল কাজী অনিরুদ্ধ, লে. কর্নেল গোলাম মহিউদ্দিন চৌধুরী, ক্যাপ্টেন মো. আব্দুস সবুর রাজন, রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহারের আবাসিক ভিক্ষু শীলপ্রিয়, বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতি (যুব) রামুর সভাপতি সুরেশ বড়ুয়া বাঙ্গালিসহ বৌদ্ধ ধর্মীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

এআর