দুই দিনেই ১০ গুণ!

Nomination_Saleসংরক্ষিত নারী আসনে জাতীয় সংসদের সদস্য হতে মনোনয়পত্র কেনার হিড়িক পড়েছে আওয়ামীলীগের বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতাদের মধ্যে। মাত্র দুই দিনে আওয়ামীলীগের ভাগের পদ সংখ্যার ১০ গুণ মনোনয়নপত্র বিক্রি হয়েছে। দশম জাতীয় সংসদের জন্য আওয়ামীলীগ ৩৮ জন সদস্য মনোনীত করতে পারবে। কিন্ত বৃহস্পতিবার বিকালেই মনোনয়নপত্র বিক্রি চারশ ছাড়িয়ে যায়। আগ্রহীরা আগামিকাল শুক্রবারও মনোনয়নপত্র কিনতে পারবেন।

সংরক্ষিত আসনে প্রার্থী সংখ্যার অনুপাত ৫ জানুয়ারির নির্বাচনের চেয়ে প্রায় ছয়গুণ বেশি। ওই নির্বাচনে মোট প্রার্থী ছিল ৫৪০ জন, যা প্রতি আসনের বিপরীতে মাত্র ১ দশমিক ৮ জন।

ফরম বিক্রির ২য় দিনে ঢাকাসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলের আ্ওয়ামী লীগের মহিলা নেত্রীরা মনোনয়ন ফরম কিনেছেন।ছাত্রলীগের সাবেক নেত্রী, যুব মহিলা লীগ, মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগ ও মহিলা আওয়ামী লীগের নেত্রীরা ফরম কিনেছেন। প্রতিটি ফরমের দাম ধরা হয়েছে ২৫ হাজার টাকা।

ইতোমধ্যে ফরম কিনেছেন যুব মহিলা লীগের সভানেত্রী ও সংরক্ষিত আসনের সাবেক সংসদ সদস্য নাজমা আকতার, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপিকা অপু উকিল, সংরক্ষিত আসনের আরেক সাবেক সদস্য শাহেদা তারেক দিপ্তি, জেবুন্নেছা আকতার মুন্নি, সানজিদা মেরী, তুরিন আফরোজ, চিত্র নায়িকা রত্নাসহ অনেকেই।

জাতীয় সংসদ (সংরক্ষিত মহিলা আসন) নির্বাচন আইন ২০০৪ অনুযায়ী দশম সংসদে আনুপাতিক প্রতিনিধিত্ব পদ্ধতিতে প্রতি আসনের বিপরীতে আওয়ামী লীগ ৩৮, জাতীয় পার্টি ৬, স্বতন্ত্র ২ এবং জাসদ ও ওয়ার্কার্স পার্টি ১টি করে সংরক্ষিত আসন পাবে।

তবে এত ফরম বিক্রি হলেও যারা মাঠে সক্রিয় ছিলেন, পরিচ্ছন্ন ইমেজের ও রূপকল্প ২০৪১ অনুযায়ী কাজ করে যাচ্ছেন, তাদেরকেই মনোনয়ন দেয়া হতে পারে।

১৯ জানুয়ারি রোববার বিকেল ৩টায় দলীয় সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবনে আগ্রহী প্রার্থীদের সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

আওয়ামী লীগের ফরম বিক্রি এবং জমা দেওয়ার প্রক্রিয়ার দায়িত্ব পালন করছেন দলের দফতর সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুল মান্নান খান, দায়িত্বপ্রাপ্ত দফতর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ ও উপ দফতর সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস প্রমুখ।

এসএসআর