দর বৃদ্ধিতে চার খাতের সেঞ্চুরি

dse index
সূচকের ঊর্ধ্বমুখী ধারা

dse1বুধবার দেশের পুঁজিবাজারে ব্যাপক উল্লম্ফন হয়েছে। বেড়েছে বেশির ভাগ কোম্পানির শেয়ারের দর। টানা দুই সপ্তাহ পর ডিএসইতে লেনদেনের পরিমাণ ছাড়িয়েছে পাঁচ’শ কোটি টাকা। এদিন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) দর বৃদ্ধিতে সেঞ্চুরি করেছে চারটি খাত। এতে স্থান করে নিয়েছে সিমেন্ট, ট্যানারি, কর্পোরেট বন্ড এবং ভ্রমণ ও পর্যটন খাত।

বাজার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, রাজনৈতিক আকাশে উদয় হওয়া কালো মেঘের অবসান হয়েছে। আপাতত এই কেন্দ্রিক আর কোনো সমস্যা হবে না বলে ভাবছেন বিনিয়োগকারীরা। যার ফলে তারা বাজারমুখী হচ্ছেন।

বাজারের এই অবস্থা সম্পর্কে পিএলএফএস ইনভেস্টমেন্টস লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংক অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) কোষাধ্যক্ষ মুস্তফা কামাল অর্থসূচককে বলেন, নির্বাচনের পর থেকেই বিনিয়োগকারীরা পুঁজিবাজারের প্রতি আশান্বিত হচ্ছেন। কারণ বিরোধী দল আন্দোলন করে নির্বাচন ঠেকাতে পারেনি।

তিনি আরও বলেন, এখন আর কোনো কর্মসূচি দিয়ে দেশকে আটকে রাখতে পারবে না। দিলেও সরকার তা কঠোর হস্তে দমন করবে। প্রধানমন্ত্রীর গতকালের দেওয়া বক্তব্যে এ কথা স্পষ্ট হয়ে গেছে। এ কথার ওপর ভিত্তি করেই বিনিয়োগকারীরা বাজারমুখী হচ্ছেন।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা যায়, বুধবার সিমেন্ট খাতে লেনদেন হওয়া ছয়টি প্রতিষ্ঠানের, কর্পোরেটে বন্ডে দুইটি, ট্যানারি খাতের পাঁচটি এবং ভ্রমণ খাতের কোম্পানির মধ্যে সবগুলোর দরই বেড়েছে।

এছাড়াও আর্থিক খাতের ৯৬ দশমিক ৬৫ শতাংশ, আইটি খাতের ৮৩ দশমিক ৩৩ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দর বেড়েছে।

জিইউ/ এআর