পেট্রল বোমায় দগ্ধ শাহিনা চলে গেলেন না ফেরার দেশে

shahina

shahinaদুর্বৃত্তদের ছোড়া পেট্রল বোমা হামলায় আগুনে দগ্ধ শাহিনা আক্তার (৩৮) মারা গেছেন। তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিউতে চিকিৎসাধীন ছিলেন। মঙ্গলবার রাত ২টার দিকে তিনি মারা যান বলে জানা যায়।

উল্লেখ্য, ৩ জানুয়ারি রাজধানীর পরিবাগের একটি যাত্রীবাহী বাসকে লক্ষ্য করে পেট্রেল বোমা নিক্ষেপ করে দুর্বৃত্তরা। মুহূর্তের মধ্যেই বাসে আগুন ধরে যায়। আর এতে শাহিনা ছাড়াও বাসের চালক বাবুল হাওলাদার ও অপর এক বাসযাত্রী ফল বিক্রেতা ফরিদ মিয়া মারাত্মক দগ্ধ হন।পরে তাদেরকে ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

পেট্রল বোমায় শাহিনার শরীরের ৬৪ শতাংশ পুড়ে গিয়েছিল। চিকিত্সকেরা শুরুতেই জানিয়েছিলেন, তার অবস্থা গুরুতর। শাহিনা একটি জীবন বিমা প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা ছিলেন। তার বাড়ি খুলনার টুটপাড়ায়। অফিসের কাজে খুলনা থেকে ঢাকায় এসেছিলেন তিনি। কাজ শেষ করে ঘটনার দিনই খুলনার উদ্দেশে রওনা দিয়েছিলেন। কিন্তু তার আর বাড়ি ফেরা হলো না। একমাত্র সন্তানকে রেখে না ফেরার দেশে পাড়ি জমালেন তিনি। সহিংস রাজনীতির আগুন এভাবে কেড়ে নিল আরও একটি নিরীহ মানুষের প্রাণ।

কেএফ