গাজরের লাড্ডু

gajor-ladduএখন শীতকাল। বাংলার প্রতি ঘরে ঘরেই গাজরের সবজি বা সালাদ থাকে। গাজর নানা পুষ্টিগুণে গুনানিত একটি খাবার। গাজরের নানা বিভিন্ন পদের খাবারের বিভিন্ন স্বাদ। অর্থসূচকের পক্ষ থেকে আজ জানানো হবে গাজরের লাড্ডুর কথা।

উপকরণ: গাজর ৫০০ গ্রাম, ঘি সিকি কাপ, চিনি ১ কাপ, কনডেন্সড মিল্ক ১ কাপ, গুঁড়া দুধ ১ কাপ, এলাচগুঁড়া আধা চা-চামচ (টেলে গুঁড়া করা), কিশমিশ ২ টেবিল-চামচ, বাদামকুচি ২ টেবিল-চামচ, পেস্তাকুচি ২টেবিল-চামচ।

যেভাবে বানাবেন: গাজর ধুয়ে ছিলে নিন। কুরুনিতে মিহি ঝুড়ি করুন। ফ্রাইপ্যানে ঘি গরম করে ঝুড়ি করা গাজর মাঝারি আঁচে ৫ থেকে ১০ মিনিট ভাজুন। এবার চুলার আঁচ কমিয়ে ঢেকে রাখুন। পাঁচ মিনিট পর ঢাকনা খুলে কিছুক্ষণ নেড়ে আবার ঢেকে রাখুন। ভাপে গাজর সেদ্ধ হয়ে এলে চিনি ও কনডেন্সড মিল্ক দিয়ে অনবরত নাড়তে থাকুন। নাড়তে নাড়তে যখন শুকিয়ে আঠালো হয়ে আসবে, তখন কিশমিশ, বাদামকুচি, পেস্তাকুচি দিয়ে আরও কিছুক্ষণ নাড়তে হবে। এলাচগুঁড়া ও গুঁড়া দুধ দিয়ে ভালো করে নেড়ে গাজরের সঙ্গে মেশাতে হবে। সম্পূর্ণভাবে মিশে গেলে নাড়তে যখন একটু কষ্ট হবে বা ভারী মনে হবে, তখন চুলা থেকে নামিয়ে নিন। গরম থাকতেই একটি পাত্রে উঠিয়ে লাড্ডুর জন্য আলাদা ভাগে রাখুন। হাতে পানি লাগিয়ে একেকটি ভাগ তালুতে নিয়ে লাড্ডুর আকারে তৈরি করে পরিবেশন পাত্রে সাজিয়ে রাখুন। ঠান্ডা হলে লাড্ডু পরিবেশন করুন।

এই লাড্ডু পাঁচ থেকে সাত দিন বায়ুরোধী বক্সে ফ্রিজে সংরক্ষণ করে রাখা যাবে। তবে ফ্রিজ থেকে বের করে ২০ সেকেন্ড মাইক্রো ওভেনে গরম করে পরিবেশন করতে পারেন।